কে হচ্ছেন ‘জাগো কথাবাজ’

নিজস্ব প্রতিবেদক : অনলাইনে নিবন্ধনের পর ‘জাগো কথাবাজ-২০১৯’ নির্ধারণে আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু হয়েছে। আগামী ৫ মে জানা যাবে কে হচ্ছেন এবারের ‘জাগো কথাবাজ’।

বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় এ আরজে হান্ট প্রতিযোগিতা দ্বিতীয়বারের মতো আয়োজন করেছে জাগো এফএম। এবারের প্রতিযোগিতার নাম দেয়া হয়েছে ‘সুপার স্টার ফান প্রেজেন্টস জাগো কথাবাজ সেশন-২ পাওয়ার্ড বাই ডেটস’।

কথাবাজ হওয়ার আশায় গত ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে ২৫ মার্চ পর্যন্ত এক হাজারের বেশি তরুণ-তরুণী JAGO FM 94.4 এর অফিশিয়াল ফেসবুক পেজ www.jago.fm এ ভিজিট করে রেজিস্ট্রেশন করেন।

রেজিস্ট্রেশনের সময় আগ্রহীদের পাঠানো ভয়েজ, ছবি ও জীবন বৃত্তান্তর ওপর ভিত্তি করে ৪০০ জন প্রতিযোগীকে বাছাই করা হয়।

প্রতিযোগিতার প্রথম রাউন্ডের অংশ হিসেবে এ ৪০০ প্রতিযোগীকে নিয়ে বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) রাজধানীর উত্তর বাড্ডার ফুজি ট্রেড সেন্টারে গেট টুগেদারের আয়োজন করা হয়।

এ গেট টুগেদারে জানানো হয়, প্রাথমিকভাবে বাছাই করা ৪০০ প্রতিযোগীর মধ্যে ৫০ জন বেছে নেয়া হবে। এরপর ৫০ জন থেকে বাছাই করা হবে সেরা ১০।

তারপর সেরা পাঁচ নির্বাচন করা হবে এবং সেরা পাঁচের লড়াই থেকে আগামী ৫ মে নির্ধারণ করা হবে চ্যাম্পিয়ন বা ‘জাগো কথাবাজ’। পাশাপাশি প্রথম ও দ্বিতীয় রানার্সআপ নির্ধারণ করা হবে।

গেট টুগেদারে কথাবাজ হতে আগ্রহীদের সামনে নিজের অভিজ্ঞতা তুলে ধরেন গতবারের কথাবাজ বা ‘জাগো কথাবাজ-২০১৮’-এর বিজয়ী কণিকা বিশ্বাস কণা।

শুরুতে মাগুরার এ মেয়ে গ্যালারিতে বসে থাকা এক প্রতিযোগীকে দেখিয়ে বলেন, ‘গত বছর আমি ওই চেয়ারটিতে বসেছিলাম। আজ এখানে (মঞ্চ) দাঁড়িয়ে আপনাদের সামনে কথা বলছি। দৃঢ় মনোবল থাকলে আপনিও বিজয়ী হতে পারবেন।’

মেডিকেলের শিক্ষার্থী থেকে জাগো কথাবাজ প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছিলেন জানিয়ে কণা বলেন, ‘এখানে যারা এসেছেন তাদের অনেকেই শিক্ষার্থী। একজন মানুষের জন্য পরিবারের সাপোর্টই সব থেকে বড়। আজ আপনারা এখানে কেন এসেছেন অবশ্যই তা আপনার পরিবারের সঙ্গে শেয়ার করবেন।’

এবারের জাগো কথাবাজ প্রতিযোগিতার ফুড অ্যান্ড বেভারেজ পার্টনার হিসেবে রয়েছে প্রাণ ড্রিংকিং ওয়াটার, ওয়ানডার কেক, প্রাণ ললিপপ, প্রাণ ফ্রুটো, ঝটপট, কফি হাউস।

অ্যাওয়ার্ড পার্টনার হিসেবে আছে টোটাল প্লাস লিমিটেড এবং ওয়ারড্রব পার্টনার রানার। মিডিয়া পার্টনার হিসেবে আছে জাগোনিউজ২৪.কম, দৈনিক ইত্তেফাক ও এনটিভি।