কর্মীর সঙ্গে প্রেম, বরখাস্ত হলেন ম্যাকডোনাল্ডের সিইও

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক বিশ্বের সর্ববৃহৎ ফাস্ট ফুড জায়ান্ট ম্যাকডোনাল্ডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা স্টিভ ইস্টারব্রুকের সঙ্গে প্রতিষ্ঠানের এক নারী কর্মীর প্রেমের সম্পর্ক তৈরির জেরে তাকে বরখাস্ত করা হয়েছে। এক অনলাইন প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

ম্যাকডোনাল্ড বলছে, ‘প্রেমের সম্পর্কটি দুজনের সম্মতিতে হলেও তা আমাদের নীতির পরিপন্থী। এছাড়া স্টিভ ইস্টারব্রুক এর মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানের একজন প্রধান কর্মকর্তা হিসেবে তার অদক্ষতার পরিচয় দিয়েছেন। তাই তাকে বরখাস্ত করা হলো।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন স্টিভ ব্রুক। তিনি এ নিয়ে কোম্পানির কর্মীদের একটি মেইল পাঠিয়ে বলেছেন, ‘এটা ছিল আমার ভুল। কোম্পানির মূল্যবোধকে প্রাধান্য দিয়ে পরিচালক বোর্ড আমাকে সরিয়ে দেযার যে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন আমিও তার সঙ্গে একমত।

১৯৯৩ সাল থেকে ম্যাকডোনাল্ডের লন্ডন শাখার ব্যবস্থাপক হিসেবে যোগদান করেন ৫২ বছর বয়সী ইস্টারব্রুক। তবে মাঝখানে তিনি পিৎজা এক্সপ্রেস ও ওয়াগামামাতেও কাজ করেছেন কিছুদিন। ম্যাকডেনাল্ডে ২০১৩ থেকে তিনি নিয়মিত। ২০১৫ সালে সিইও হিসেবে নিয়োগ পান। তার বিচ্ছেদ হয়েছে।

প্রতিষ্ঠানের খাবারের মেন্যুর মান উন্নয়ন এবং রেস্টুরেন্টকে নতুন করে গড়ে তোলার ক্ষেত্রে ইস্টারব্রুককে ব্যাপকভাবে কৃতিত্ব দেয়া হয়। তার নেতৃত্বে প্রতিষ্ঠানটি ক্রেতাদের সুবিধার্থে খাবার ডেলিভারি ও মুঠোফোনে অর্থ পরিশোধের বিষয়টিতে আরও জোর দেয়।

কর্মীর সঙ্গে সিইও স্টিভ ইস্টারব্রুকের প্রেমের সম্পর্ক আছে এমন খবর জানাজানি হওয়ার পর গত শুক্রবার বোর্ড মিটিংয়ে বসে কোম্পানিটির পরিচালক পর্ষদ। সেখান থেকে ইস্টারব্রুককে বরখা্তি করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। তিনি একইসঙ্গে ম্যাকডোল্ডের প্রেসিডেন্ট এবং বোর্ড সদস্যের পদ থেকে সরে গেছেন।