এতিম ইদ্রিস আলী বাঁচতে চায়

এস এম বাচ্চু, তালা (সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি : তালায় দূরারোগ্য ব্যধি ক্যান্সারে আক্রান্ত এতিম যুবক মো ইদ্রিস আলী বাঁচতে চায়। সমাজের স্বহৃদয়বান মানুষদের সহযোগীতায় মাত্র ৭ লক্ষ টাকা হলে বেঁচে যেতে পারে ইদ্রিস আলী। আর তাতেই বেঁচে থাকবে ইদ্রিসের বিধবা মাসহ পরিবারের অন্য সদস্যরা।

এতিম যুবক ইদ্রিস আলী তালার হরিশ্চন্দ্রকাঠি গ্রামের মৃত জাহান আলী সরদারের ছেলে।

ইদ্রিসের চাচা ভ্যান চালক বিল্লাল সরদার জানান, হতদরিদ্র জাহান আলী সরদার মারা যাবার পর তার ছেলে মো ইদ্রিস সরদার (২৩) হোটেলে কাজ করে অসহায় মায়ের ভরণপোষণসহ সংসার চালিয়ে আসছিল। কিন্তু এরই মাঝে ইদ্রিস একের পর এক অসুস্থ্য হতে থাকে। এক পর্যায়ে খুলনার বিশেষজ্ঞ ডাক্তার এর কাছ থেকে পরীক্ষা করানোর পর পেটের নাড়িতে ক্যান্সার ধরা পড়ে। যা গত প্রায় ১মাস আগে ঢাকার মহাখালী ক্যান্সার হাসপাতাল থেকে পুনরায় পরীক্ষা করে নিশ্চিত হওয়া যায়।

এই পরীক্ষাগুলো করাতেই ভিটে-বাড়ির সামান্য জমিটুকু বন্ধক রাখতে হয়েছে ইদ্রিসের বৃদ্ধা বিধবা মা’কে। বর্তমানে টাঙ্গাইলের কুমদিনি হাসপাতালে চিকিৎসাধিন ইদ্রিস আলী প্রয়োজনীয় চিকিৎসা পেলেই সুস্থ্য হয়ে যাবে বলে সেখানকার বিশেষজ্ঞ ডাক্তাররা জানিয়েছেন।

আর এজন্য তার ৭ থেকে ৮ লক্ষ টাকা ব্যয় হবে। কিন্তু হতদরিদ্র এতিম যুবক ইদ্রিস আলীর মায়ের পক্ষে এই টাকা যোগাড় করা সম্ভব নয়। যে কারনে ইদ্রিসের চিকিৎসা এখন অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। একই সাথে অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে ইদ্রিসের হতভাগ্য মায়ের বাকি জীবন ও সংসার!

একারনে এতিম যুবক ইদ্রিস আলীর জীবন রক্ষায় তার চাচা দিনমজুর বিল্লাল সরদার সমাজের দানশীল মানুষদের সু-দৃষ্টিসহ সহযোগীতা কামনা করেছেন। ইদ্রিস আলীকে আর্থিক সহযোগীতা প্রদানসহ সার্বিক বিষয়ে যোগাযোগ করার জন্য ০১৯৪৭-১৪১৬০৬ (মোবাইল ব্যাংকিং বিকাশ) ও ০১৭৫৩-৮২৬১৫৯ মোবাইল ফোনে বিল্লাল সরদারের সাথে যোগাযোগ করার জন্য করুন আকূতি জানানো হয়েছে।