এখন থেকে ভোট পর্যন্ত মাঠে থাকবে আ.লীগ: পরিকল্পনামন্ত্রী

কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মোস্তাফা কামাল লোটাস বলেছেন, ৮ ফেব্রুয়ারি নয়, আজ থেকে আগামী নির্বাচন পর্যন্ত বাংলাদেশ আওয়ামী লীগসহ ১৪ দলের সকল অঙ্গ সংগঠন মাঠে থাকবে। আওয়ামী লীগের কোন অসৎ উদ্দেশ্য নেই, কারো সাথে যুদ্ধ করা।

মঙ্গলবার কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা শেষে কুমিল্লা টাউন হল মুক্তিযোদ্ধা কর্নারে ‘দুর্নীতির মামলায় খালেদা জিয়ার সাজা হলে অসহিষ্ণু আন্দোলনের হুমকি দিয়েছে বিএনপি’ সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আমরা সরকারের অংশ, সরকার এখন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগসহ ১৪ দলের। আওয়ামী লীগের ছাত্রলীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, কৃষকলীগ, তাঁতী লীগ এবং আওয়ামী লীগসহ সকল সংগঠনের কাজ হচ্ছে সরকারকে বিভিন্ন বিপদ-আপদে সাহায্য সহযোগিতা করা। শুধু সরকার নয়, সরকারের বিভিন্ন প্রশাসনিক দিকগুলোকেও আমরা সাহায্য করতে প্রস্তুত।

কামাল লোটাস বলেন, আমাদের ভালো কাজের জন্যই এদেশের মানুষ আওয়ামী লীগকে বারবার ভোট দিয়ে ক্ষমতায় আসার সুযোগ করে দিয়েছেন। আগামী নির্বাচনেও এদেশের সর্বস্তরের মানুষ আওয়ামী লীগের নৌকায় ভোট দিয়ে তাদের সেবা ও উন্নয়ন করা সুযোগ করে দেবেন।

একই প্রশ্নের জবাবে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক মুজিব বলেছেন, ২০১৪-১৫ সালে বিএনপির তথাকথিত আন্দোলন জনগণ প্রতিহত করেছে। আগামী ৮ ফেব্রুয়ারি কেন? যে কোন সময়, বিএনপির যে কোন সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড জনগণ সফলভাবে প্রতিহত করবে এবং রাজপথ ও এদেশের জনগণ আওয়ামী লীগের পক্ষে থাকবে। আন্দোলনের নামে বিএনপি ও জামায়াত যেখানে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড করবে- সেখানে জনগণ রুখে দাঁড়াবে।

মুজিবুল হক বলেন, আজকের বর্ধিত সভা হয়েছে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক কর্মকাণ্ডকে শক্তিশালী ও আরো মজবুত করার লক্ষ্যে। এই বর্ধিত সভায় সিদ্ধান্ত গ্রহণ হয়েছে, আগামী নির্বাচন পর্যন্ত জামায়াত ও বিএনপির সকল আন্দোলন সংগ্রাম ও সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড দলীয়ভাবে প্রতিহত করা হবে।

এর আগে মঙ্গলবার দুপুরে কুমিল্লা টাউন হল মুক্তিযোদ্ধা কর্নারে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় পরিকল্পনা মন্ত্রী আ হ ম মোস্তাফা কামাল লোটাসের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন- কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক মুজিব, সিনিয়র সহ-সভাপতি ও সংসদ সদস্য তাজুল ইসলাম এমপি, সহ-সভাপতি জসিম উদ্দিন, সালাউদ্দিন, সাবেক সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম, মফিজুর রহমান বাবলু, কুমিল্লা জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবু তাহের, যুগ্ম সম্পাদক সাজ্জাদ হোসেন স্বপন, আবদুল করিম চেয়ারম্যান, অধ্যক্ষ মমিনুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক পার্থ সারথী দত্ত, জাহাঙ্গীর আলম রতন, অ্যাডভোকেট কামারুল ইসলাম প্রমুখ।

Inline
Inline