একাত্তর টিভির কর্মীকে পিষে মারল বাস

নিজস্ব প্রতিবেদক : বেসরকারি টেলিভিশন একাত্তর টিভির এক কর্মকর্তার মৃত্যু হয়েছে বাস চাপায়। তার নাম আনোয়ার হোসেন। দ্রুতগামী বাসটি মোটরসাইকেলে থাকা ওই টেলিভিশন কর্মীকে ধাক্কা দিয়ে সড়কের আইল্যান্ডে উঠে যায় বাইকসমেত।

শনিবার সকাল ১০টার দিকে সেনানিবাস সংলগ্ন জাহাঙ্গীর গেইট এলাকায় দুর্ঘটনায় ঘটে। এরপর পুলিশ বাসটিকে জব্দ করার পাশাপাশি আটক করেছে তার চালককে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গাজীপুর থেকে নিউমার্কেট রুটে চলা ভিআইপি পরিবহনের বাসটি গাজীপুরের দিকে যাচ্ছিল। জাহাঙ্গীর গেট এলাকায় মহাখালী ফ্লাইওভারের দিকে ডানে ঘুরতে গিয়ে বাসটি মোটরসাইকেলটিকে ধাক্কা দেয়। ছিটকে পড়েন আরোহী আনোয়ার। আর বাসটি মোটর সাইকেলকে নিয়ে চলতে গিয়ে উঠে যায় আইল্যান্ডে।
পরে আনোয়ারের পায়ের ওপর দিয়ে চলে যায় বাসটি, তিনি পড়ে গিয়ে আঘাত পান মাথাসহ শরীরের অন্য অংশে।

এরপরও বাসটি চলতে থাকলে মোটর সাইকেলটি দুমড়েমুচড়ে বাসের মাঝখানে ঢুকে যায়। তার আগে বাসটি একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশাকে ধাক্কা দিলে এর একযাত্রী আহত হন।

পরে আনোয়ার ও ওই অটোরিকশাযাত্রীকে পথচারীরা উদ্ধার করে কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানেই মারা যান একাত্তর টিভির কর্মী।

আনোয়ার হোসেন বেসরকারি টেলিভিশনটিতে বিপণন বিভাগের কর্মকর্তা ছিলেন বলে জানিয়েছেন তার সহকর্মীরা।

ঢাকা মহানগর পুলিশের মিরপুর জোনের সহকারী কমিশনার (এসি) সৈয়দ মামুন মোস্তফা বলেন, ‘ভিআইপি পরিবহণের একটি বাস পেছন থেকে মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দেয়। এসময় আনোয়ার হোসেন মোটরসাইকেল নিয়ে রাস্তায় পরে যান। পরে বাসের দুটি চাকা তার পায়ের উপর দিয়ে চলে যায়। তাৎক্ষণিক তাকে উদ্ধার করে কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। আমরা বাসের চালক ও বাসটি জব্দ করেছি।’

কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের সহকারী পরিচালক ছগির মিয়া আনোরের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ‘সাড়ে দশটার দিকে তাকে আমাদের হাসপাতালে আনা হয়েছিল। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১২টা ৪০ মিনিটে তিনি মারা যান।’