‘আরেকটা বিয়েই তো করছি, দেশের ক্ষতি করছি না’ : ইমরান খান

ক্রীড়া ডেস্ক : বয়স কম নয়, ৬৫। তবে মনের দিক থেকে ইমরান খান এখনও তরুণ। চেহারাটাও রয়ে গেছে সেরকম। চোয়াল এখনও আগের মতোই শক্ত, গাল কাশ্মীরি গোলাপের রঙকেও হার মানাবে। সুদর্শন এবং সুপুরুষ বলতে যা বোঝায় এক কথায় ইমরান খান তাই। ক্রিকেট থেকে রাজনীতি, লড়াইয়ের মাঠ পাল্টালেও তিনি এখনও নায়ক সবার কাছে।এবার এই জাতীয় নায়কের বিয়ে নিয়েই শোরগোল গোটা পাকিস্তান জুড়ে।

বিয়ে কেন যেন সুখের হয়নি তাঁর জন্য। ২২ গজে ইমরানের সঙ্গে জেমিমার যুগলবন্দি ৯ বছরই স্থায়ী হয়। ১৯৯৫ থেকে ২০০৪, একসঙ্গে সংসার করার পর দুজনের মধ্যে ছাড়াছাড়ি হয়ে যায়। এর ঠিক এক দশক পর নতুন করে প্রেমের পড়েন ইমরান। ২০১৫ সালে তিনি বিয়ে করেন সাংবাদিক রেহম খানকে। প্রথম বিয়ের মতই এই বিয়েও দীর্ঘস্থায়ী হয়নি। তেহরিক-ই-ইনসাফ প্রধান ইমরানকে ছেড়ে চলে যান দ্বিতীয় স্ত্রী রেহিমাও।

বছর ঘুরতে না ঘুরতেই ফের ইমরানের বিয়ে নিয়ে শুরু হয়েছে শোরগোল। ইমরান খান না কি বিয়ে করছেন বুশরা বিবিকে।

বিরোধীরা সমালোচনা করলেও পাক তারকা কিন্তু বলছেন,‘বিয়ে করছি, রাষ্ট্রের কোনো ক্ষতি করছি না’। শোনা যাচ্ছে, চলতি বছরের শুরুতেই চার হাত এক করতে চলেছেন ইমরান এবং বুশারা।

Inline
Inline